মঙ্গলবার, ০৬ ডিসেম্বর ২০২২, ০৮:৪০ অপরাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ :

বিরামপুরে শিক্ষার্থীকে শিকলে বেঁধে নির্যাতনের অভিযোগে পরিচালক আটক

রিপোটারের নাম
  • আপডেট সময় : বুধবার, ৯ সেপ্টেম্বর, ২০২০
  • ১১০ বার পঠিত
মাদ্রাসার পরিচালক লুৎফর রহমান
বিরামপুর (দিনাজপুর)  প্রতিনিধি।- দিনাজপুরের বিরামপুর উপজেলার দিওড় ইউনিয়নের কাদিপুর ত্বালিম উদ্দিন মাদ্রাসার হেফজ বিভাগের শিক্ষার্থী মারুফ হাসান (১০) কে শিকলে বেঁধে মধ্যযুগীয় কায়দায় শারীরিক ও মানসিক ভাবে নির্যাতনের অভিযোগে পুলিশ শিকলে বাঁধা শিশুটিকে উদ্ধার পূর্বক মাদ্রাসার পরিচালক লুৎফর রহমান (৩৫) কে আটক করে জেলহাজতে প্রেরণ করেছেন। এ বিষয়ে মঙ্গলবার  বিরামপুর থানার মামলা নং-১২।
মামলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, ৮ সেপ্টেম্বর বুধবার উপজেলার কাদিপুর ত্বালিম উদ্দিন মাদ্রাসার মোহতামিম/ পরিচালক জেলার ফুলবাড়ী উপজেলার রুদ্রাণী (মন্ডলপাড়া) এলাকার মৃত: সাইফুর রহমানের ছেলে মো.লুৎফর রহমান লেখাপড়ার অজুহাতে প্রায় শিক্ষার্থী মারুফ হাসানকে মারধর করত। ঘটনাটি জানার পর শিক্ষার্থীর পিতা  মাদ্রাসায় গিয়ে ছেলে মারুফ হাসানকে লেখা পড়ায় মনোগি হতে নির্দেশ করে। সেই সাথে মাদ্রাসার পরিচালক লুৎফর রহমানের নিকট ছেলেকে মানসিক ও শারীরিক নির্যাতন না করতে অনুরোধ করে। মঙ্গলবার দুপুরে লুৎফর রহমান মারুফকে ডেকে তাঁর অফিস কক্ষে দুইপায়ে শিকল দিয়ে বেঁধে লাঠি দিয়ে বেধড়ক পিটিয়ে হাতে, মাথায়, পিঠেসহ শরীরের বিভিন্ন স্থানে কালশিরা জখম করলে শিক্ষার্থী নিস্তেজ হয়ে মাটিতে লুটে পড়ে। এ সময় ওই শিক্ষার্থীর চিৎকারে সহপাটি ও অন্যান্য শিক্ষকরা এগিয়ে আসলে লুৎফর রহমান তাদের কে এগিয়ে না আসার জন্য হুমকি দেয়। মাগরিবের নামাজের সময় পরিচালক লুৎফর রহমান,অন্যান্য শিক্ষকবৃন্দসহ শিক্ষার্থীরা নামাজে গেলে শিক্ষার্থী মারুফ দুইপায়ে শিকল বাঁধা অবস্থায় নিজেকে উদ্ধার করে ধানের ক্ষতের কাদা মাড়িয়ে মাদ্রাসার পার্শ্ববর্তী তৈয়বপুর চৌধুরী পাড়ার ধানক্ষেতে মধ্যে কর্দমাক্ত শরীরে দুই পায়ে শিকল পরিহিত অবস্থায় পড়ে থাকে। শিশুটিকে এবস্থায় পড়ে থাকার বিষয়টি স্থানিয় জনতা দেখে বিরামপুর থানায় সংবাদ দেয়। সংবাদ পেয়ে বিরামপুর থানা পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে অসুস্থ অবস্থায় শিশু মারুফ হাসানকে উদ্ধার করে।
এ বিষয়ে বিরামপুর থানা অফিসার ইনচার্জ মনিরুজ্জামান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, দুই পায়ে শিকল বাঁধা ও শরীরে কাদামাখা শিশুটিকে উদ্ধার করে বিরামপুর পৌরসভা পূর্বপাড়া মহল্লার আজগর আলির ছেলে জনৈক সেকার গুলসান আলির সহায়তায় শিকল মুক্তকরে বিরামপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে তাৎক্ষনিক প্রাথমিক চিকিৎসা প্রদান করি। এরপর রাতেই কৌশলে শিশু নির্যাতনকারি মাদ্রাসার পরিচালক লুৎফর রহমানকে গ্রেফতার পূর্বক বুধবার রাত ৩টা ৪৫ মিনিটে ২০১৩ সালের শিশু আইন এর ৭০ ধারায় মামলা রজু করা হয়। বুধবার সকালে আসামীকে আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে বলে তিনি জানিয়েছেন।।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই রকম আরো সংবাদ
© সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © 2020-2022 বজ্রকথা।
ডিজাইন ও কারিগরি সহযোগিতায়: Hostitbd.Com