রবিবার, ০৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ১০:৫৭ অপরাহ্ন

ঘোড়াঘাটে টিসিবির পন্য বিক্রি শুরু: বরাদ্দ প্রয়োজনের তুলনায় অতি নগন্য

রিপোটারের নাম
  • আপডেট সময় : শুক্রবার, ১৮ সেপ্টেম্বর, ২০২০
  • ১১৩ বার পঠিত

ঘোড়াঘাট (দিনাজপুর) প্রতিনিধি।- দিনাজপুর ঘোড়াঘাটে ট্রেডিং করপোরেশন অব বাংলাদেশ (টিসিবি) পণ্য বিক্রি শুরু হয়েছে বরাদ্দ প্রয়োজনের তুলনায় অতি নগন্য
বিধি মতাবে টিসিবির ডিলার হতে হলে উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) মাধ্যমে আবেদন করতে হয়। এ উপজেলায় প্রাথমিক ভাবে ২ জনের নাম পাঠানো হয়।
পরবর্তীতে আবেদন কারীরা ডিলারশীপ নিতে অনিহা প্রকাশ করে। পূনরায় ডিলারশীপ নিতে ২ জনের নাম প্রেরণ করা হয়। টিসিবির পণ্য বিক্রির জন্য ২টি স্থান নিধারণ করা হয়। একটি উপজেলার রাণীগঞ্জবাজার ও অপরটি ওসমানপুর বাজার।
বতমান ওসমানপুর বাজারের আবেদন কারী লাল মিয়া টিসিবির পণ্য বিক্রির কোন অনুমতি পত্র না পাওয়ায় সে মাল তুলতে পারছেনা।
অপর দিকে রাণীগঞ্জ বাজারে গোলাম জিলানী টিসিবির পণ্য বিক্রি অনুমতি পাওয়ায় গতকাল শুক্রবার সকাল ১০টা থেকে পণ্য বিক্রি শুরু করেছে।
টিসিবির পণ্য বিক্রির জন্য সে মশুর ডাল ৫’শ কেজি, চিনি ৬’শ কেজি, সয়াবিন তৈল ৫’শ লিটার ও ভারতীয় পেঁয়াজ ২’শ কেজি বরাদ্দ পেয়েছে। যা এই মুহুতে রাণীগঞ্জবাজারে প্রায় ২০ হাজার লোকে বসবাসকারী লোকের জন্য অতি নগন্য। বাঁকি রইলো বুলাকীপুর ইউনিয়ন ও সিংড়া ইউনিয়নের গ্রাম বাসী। গতকাল শুক্রবার রাণীগঞ্জে টিসিবির পণ্য বিক্রিতে দেখা গেছে ডিলার ১টি প্যাকেজ করেছেন। একটি গ্রাহক টিসিবির পণ্য কিনতে হলে ১ কেজি পেঁয়াজ, ২ কেজি মশুর ডাল, ২ কেজি চিনি ও ২লিটার সয়াবিন তৈল মিলে ১২০টাকার একটি প্যাকেজ কিনতে হচ্ছে। যা নিম্ন আয়ের মানুষের জন্য সম্ভব হচ্ছেনা। গতকাল শুক্রবার পর্যন্ত ঘোড়াঘাটের হাট বাজার গুলোতে দেশী পেঁয়াজ ৯০টাকা ও ভারতীয় পেঁয়াজ ৭০টাকা কেজিতে বিক্রি হচ্ছে।
এ মুহুত্বে ৩০ টাকা কেজিতে টিসিবির পেঁয়াজ পাওয়া গেলেও বরাদ্দ কম হওয়ায় সবার ভাগে জুটছেনা টিসিবির এ স্বপ্ল মূল্য পেঁয়াজ ক্রয় করা। এলাবাসীর দাবী টিসিবির এ পেঁয়াজ আরো বেশী বরাদ্দ দেওয়া প্রায়েজন।

ক্যাপশনঃ ঘোড়াঘাটে রাণীগঞ্জে টিসিবির পণ্য ক্রয় করতে এভাবে ভিড় দেখা যাচ্ছে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই রকম আরো সংবাদ
© সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © 2020-2022 বজ্রকথা।
ডিজাইন ও কারিগরি সহযোগিতায়: Hostitbd.Com