রবিবার, ২৯ জানুয়ারী ২০২৩, ১২:৫৭ পূর্বাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ :
রংপুরে ধর্মীয় ভাবগাম্ভীর্যের মধ্যদিয়ে সরস্বতী পূজা অনুষ্ঠিত ঘোড়াঘাটে চাচা-ভাতিজা হত্যা মামলার প্রধান আসামী গ্রেফতার নিরাপত্তা চেয়ে সদ্য বদলি  হওয়া পরিচালকের আবেদন স্বপ্ন পূরণ হচ্ছে ফুটবলার নাজমুল এর পীরগঞ্জে বাশিস এর নব-নির্বাচিত কমিটির শপথ গ্রহণ স্মার্ট পুলিশিং কার্যক্রম শিঘ্রই চালু করা হবে -রংপুরে অতিরিক্ত আইজি ঘোড়াঘাটে সড়ক দূর্ঘটনায় একই পরিবারের ২ জন নিহত আহত ৩ জন দেশ বিরোধী কর্মকান্ডকে রুখতে রংপুরে আওয়ামী লীগের শান্তি সমাবেশ দিনাজপুরে বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী দেশরত্ন শেখ হাসিনার উপহার শীতবস্ত্র শনিবারে জেলা আঃলীগের নব-নির্বাচিত কমিটির সংবর্ধনা

২০১৯ এর ভর্তি নীতিমালা অনুযায়ী ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ারিং শিক্ষা কোর্সে ভর্তি কার্যক্রম শুরুর দাবীতে দিনাজপুরে শিক্ষামন্ত্রী বরাবর আইডিইবির স্মারকলিপি

রিপোটারের নাম
  • আপডেট সময় : মঙ্গলবার, ২১ জুলাই, ২০২০
  • ২২৫ বার পঠিত

নিজস্ব প্রতিবেদক, দিনাজপুর।- শিক্ষা মন্ত্রণালয় কর্তৃক প্রণীত ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ারিং শিক্ষা কোর্সে ভর্তি নীতিমালা-২০২০ প্রত্যাহার করে ২০১৯ এর ভর্তি নীতিমালা অনুযায়ী ২০২০-২০২১ শিক্ষাবর্ষের ভর্তি কার্যক্রম শুরুর দাবীতে শিক্ষামন্ত্রী ডা. দিপু মনি এমপি বরাবর দিনাজপুর জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে স্মারকলিপি প্রদান করেছে ইনস্টিটিউশন অব ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ার্স বাংলাদেশ (আইডিইবি) দিনাজপুর জেলা শাখা।

২০ জুলাই সোমবার সকাল সাড়ে ১০টায় দিনাজপুর জেলা প্রশাসক মো. মাহমুদুল আলমের নিকট আইডিইবি দিনাজপুর জেলা শাখার সভাপতি মো. মতিউর রহমান ও সাধারন সম্পাদক প্রকৌশলী মো. আব্দুল আউয়ালের নেতৃত্বে স্মারকলিপি প্রদান করা হয়। এসময় উপস্থিত ছিলেন আইডিইবি জেলা শাখার সহ-সভাপতি মো. শহিদুল ইসলাম, যুগ্ম সাধারন সম্পাদক মো. সাজিউল ইসলাম, সাংগঠনিক সম্পাদক মো. মাসুদ রানা, অর্থ সম্পাদক জি.এন ভট্টাচার্য্য প্রমুখ।

স্মারকলিপিতে বলা হয় ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ারিং ভর্তির বিতর্কিত নীতিমালাকে কেন্দ্র করে পলিটেকনিক শিক্ষার্থী ও ডিপ্লোমা প্রকৌশলীদের মাঝে যে অস্থিরতা সৃষ্টি হয়েছে তা নিরসন কল্পে বিতর্কিত নীতিমালা প্রত্যাহার করে ২০১৯ সালের ভর্তি নীতিমালা অনুযায়ী ২০২০-২০২১ শিক্ষাবর্ষে শিক্ষার্থী ভর্তির কার্যক্রম গ্রহণের নির্দেশনাদানের জন্য শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের প্রতি আহবান জানানো হয়।

স্মারকলিপিতে আরো উল্লেখ করা হয় পলিটেকনিক ইনস্টিটিউট সমূহের বিদ্যমান অবকাঠামো, ল্যাব, ওয়ার্কশপ ও জনবল রেখে সব বয়সীদের জন্য ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ারিং শিক্ষা কোর্স উন্মুক্ত করা হলে এবং ভর্তি যোগ্যতা জিপিএ ৩.৫ থেকে হ্রাস করে ২.২৫ নির্ধারণ করা হলে শিক্ষার প্রতি অভিভাবকদের মাঝে অনাগ্রহ সৃষ্টি হবে ফলে শিক্ষার মান প্রশ্নবৃদ্ধ হয়ে পরবে। অন্যদিকে সব বয়সীদের ভর্তির সুযোগ দেয়া হলে নিয়মিত ও অনিয়মিত বয়সভিত্তিক শিক্ষার্থীদের অংশগ্রহণে শিক্ষাপাঠদানে চরম বিশৃঙ্খলা দেখা দিবে।

আইডিইবি নেতৃবৃন্দ বলেন, বয়সীদের মেধা মূল্যায়নের জন্য সরকারি-বেসরকারি পলিটেকনিক, টেকনিক্যাল স্কুল এন্ড কলেজ, জনশক্তি ব্যুরো’র আওতাভুক্ত টেকনিক্যাল ট্রেনিং সেন্টারে ৬ মাস/১ বছর মেয়াদী দক্ষতা বৃদ্ধির প্রশিক্ষন প্রদান, বাংলাদেশ কারিগরি শিক্ষাবোর্ডের এনটিভিকিউএফ এর আওতায় যে কোন বয়সের এবং বিদেশ ফেরত ব্যক্তিদের লেভেল ১ থেকে ৬ পর্যন্ত দক্ষতা সনদ অর্জনের সুযোগ রয়েছে উল্লেখ করে ভর্তির নীতিমালা নিয়ে পলিটেকনিক শিক্ষাঙ্গণে সৃষ্ট অস্থিরতা নিরসনে নেতৃবৃন্দ দ্রæত পদক্ষেপ গ্রহণের জন্য শিক্ষা মন্ত্রীর প্রতি অনুরোধ জানান।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই রকম আরো সংবাদ
© সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © 2020-2022 বজ্রকথা।
ডিজাইন ও কারিগরি সহযোগিতায়: Hostitbd.Com