রবিবার, ১৪ জুলাই ২০২৪, ১০:৩০ অপরাহ্ন

কটিয়াদীতে বিয়ে করে ইনকাম বিয়ে বাণিজ্যের হোতা গ্রেপ্তার !

রিপোটারের নাম
  • আপডেট সময় : বুধবার, ২৬ মে, ২০২১
  • ১৫২ বার পঠিত

কটিয়াদী (কিশোরগঞ্জ ) প্রতিনিধি।- নিম্ন মধ্যবিত্ত পরিবারের উঠতি বয়সের মেয়েদের বিয়ে করে অভিভাবকদের কাছ থেকে কৌশলে টাকা হাতিয়ে নেয়াই চক্রটির কাজ। চক্রটির বিয়েবাণিজ্যের ফাঁদে পড়ে গত ৯ মাসে প্রতারিত হয়েছে চারটি পরিবার। অবশেষে পুলিশের জালে ধরা পড়েছে বিয়ে বাণিজ্যের হোতা মো. নাঈম ওরফে রাজু (২৯)। আটকের পর বেরিয়ে এসেছে চক্রটির বিয়ে বাণিজ্যের চাঞ্চল্যকর সব তথ্য। মো. নাঈম ওরফে রাজু কিশোরগঞ্জের কটিয়াদী উপজেলার চান্দপুর ইউনিয়নের শিমুলকান্দী গ্রামের মফিজ মিয়ার ছেলে। কটিয়াদী থানা পুলিশের হাতে গ্রেপ্তার হওয়া মো. নাঈম ওরফে রাজু গত ৯ মাসে ৪টি বিয়ে করেছে। এর মধ্যে কটিয়াদীতে ২টি, ভৈরবে ১টি এবং পার্শ্ববর্তী নরসিংদী জেলার মনোহরদীতে ১টি বিয়ে করেছে বলে তথ্য পেয়েছে পুলিশ। পুলিশ জানায়, প্রতারক চক্রটির ৪/৫ জন সদস্য একসাথে দীর্ঘদিন ধরে এই প্রতারণা করে আসছে। তাদের টার্গেট হচ্ছে, নিম্ন মধ্যবিত্ত পরিবারের উঠতি বয়সের মেয়েদের বিয়ে করে অভিভাবকদের কাছ থেকে কৌশলে টাকা হাতিয়ে নেয়া। বিয়ের পূর্বে এই চক্রের প্রত্যেক সদস্য ভিন্ন ভিন্ন ভূমিকা পালন করে। যেমন কেউ ছেলের বড় ভাই, কেউ চাচা, কেউ মামা, কেউ বা ঘটক। অনেক সময় চক্রটির হোতা প্রতারক নাঈম এতিম হিসেবে মেয়ের অভিভাবকদের সহানুভূতি নিয়ে প্রতারণা শুরু করে। বিয়ের আগেই ঘটক কিছু টাকা হাতিয়ে নেয়। তারপর নতুন জামাই বিভিন্ন অজুহাতে টাকা নেয়া শুরু করে। টাকা দেওয়া বন্ধ হলেই প্রতারক নাঈম পালিয়ে যায়। পরবর্তীতে চক্রের সদস্যরা মিলে নতুন বিয়ের মিশনে নামে। প্রতারক নাঈম ওরফে রাজুর বিরুদ্ধে জোর পূর্বক গর্ভপাত ঘটানোর অভিযোগও রয়েছে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই রকম আরো সংবাদ
© সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © 2020-2022 বজ্রকথা।
ডিজাইন ও কারিগরি সহযোগিতায়: Hostitbd.Com