মঙ্গলবার, ০৯ অগাস্ট ২০২২, ০৫:৪০ পূর্বাহ্ন

সিলেটের এমসি কলেজে গৃহবধূ ধর্ষণ ৯ জনের নামে মামলা

রিপোটারের নাম
  • আপডেট সময় : রবিবার, ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০২০
  • ১২৪ বার পঠিত

বজ্রকথা প্রতিবেদক ।- সিলেটের সরকারি মুরারী চাঁদ (এমসি) কলেজের ছাত্রাবাসে ২৫ সেপ্টেম্বর শুক্রবার সন্ধ্যায় এক গৃহবধকে গণধর্ষনের ঘটনায় সর্বত্র নিন্দার ঝড় উঠেছে। এই ঘটনার সাথে ছাত্রলীগ নামধারী কয়েকজন ছাত্রের নাম উঠায় ছাত্রলীগের সমালোচনা করছে সচেতন মহল।
এই ঘটনায় শনিবার সকালে ৯ জনকে আসামি করে শাহপরাণ থানায় বাদী হয়ে মামলা দায়ের করেছেন ধর্ষিতার স্বামী । মামলায় ৬ ছাত্রলীগ কর্মীর নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাত আরও তিনজনকে আসামি করা হয়েছে। আসামিরা হলেন- এম সাইফুর রহমান, শাহ মাহবুবুর রহমান রনি, তারেক আহমদ, অর্জুন লঙ্কর, রবিউল ইসলাম ও মাহফুজুর রহমান। তারা সবাই ছাত্রলীগের রাজনীতির সঙ্গে জড়িত। আসামিদের মধ্যে তারেক ও রবিউল বহিরাগত এবং বাকিরা এমসি কলেজের ছাত্র।
জানা গেছে, শুক্রবার সন্ধ্যায় স্বামীকে নিয়ে এমসি কলেজ এলাকায় ঘুরতে গিয়েছিলেন সিলেটের দক্ষিণ সুরমার শিববাড়ী এলাকার এক গৃহবধূ। এ সময় কলেজ ক্যাম্পাস থেকে এম সাইফুর রহমান ও শাহ মাহবুবুর রহমান রনির নেতৃত্বে স্বামী-স্ত্রীকে পার্শ্ববর্তী কলেজ ছাত্রাবাসে তুলে নিয়ে যায় ছাত্রলীগের ৬ কর্মী। সেখানে একটি কক্ষে স্বামীকে আটকে রেখে স্ত্রীকে ধর্ষণ করে ছাত্রলীগ কর্মীরা। খবর পেয়ে রাত ১০টার দিকে শাহপরাণ থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে স্বামী-স্ত্রীকে উদ্ধার করে এবং নির্যাতিতাকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ওসিসিতে ভর্তি করা হয়। বর্তমানে তিনি সেখানে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। এদিকে এ ঘটনার পরপরই অভিযানে নামে পুলিশ। গণধর্ষণ ঘটনার মূল হোতা ছাত্রলীগ ক্যাডার এম সাইফুর রহমানের রুম থেকে দেশীয় আগ্নেয়াস্ত্র উদ্ধার করেছে পুলিশ। শুক্রবার দিবাগত রাত ২টার দিকে শাহপরাণ থানা পুলিশ এমসি কলেজ ছাত্রাবাসে অভিযান চালায়।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই রকম আরো সংবাদ
© সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © 2020-2022 বজ্রকথা।
ডিজাইন ও কারিগরি সহযোগিতায়: Hostitbd.Com